মৃত শিশুসন্তানকে ওঝা দিয়ে বাঁচানোর চেষ্টা পরিবারের – দৈনিক নোঙর – আপোষহীন চিন্তার সাথে মৃত শিশুসন্তানকে ওঝা দিয়ে বাঁচানোর চেষ্টা পরিবারের – দৈনিক নোঙর – আপোষহীন চিন্তার সাথে
  1. news-desk@nongor.news : বার্তা ডেস্ক : বার্তা ডেস্ক
  2. niloy@nongor.news : Creative Niloy : Creative Niloy
  3. nisan@nongor.news : অনলাইন ডেস্ক : অনলাইন ডেস্ক
  4. mdashik.ullah393@gmail.com : অনলাইন ডেস্ক : অনলাইন ডেস্ক
  5. sultanashaila75@gmail.com : Shaila Sultana : Shaila Sultana
  6. ronia3874@gmail.com : অনলাইন ডেস্ক : অনলাইন ডেস্ক
  7. sarowar@nongor.news : অনলাইন ডেস্ক : অনলাইন ডেস্ক
বৃহস্পতিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২১, ১০:০৬ অপরাহ্ন

মৃত শিশুসন্তানকে ওঝা দিয়ে বাঁচানোর চেষ্টা পরিবারের

অনলাইন ডেস্ক
  • প্রকাশের সময় : সোমবার, ২২ ফেব্রুয়ারী, ২০২১
  • ৫৯ জন পড়েছেন

মুন্সিগঞ্জের টঙ্গিবাড়ী উপজেলার পুড়াপাড়া গ্রামে সাপের কামড়ে জুনায়েদ সেখ (৯) নামের এক শিশুর মৃত্যু হয়েছে। সোমবার (২২ ফেব্রুয়ারি) বিকেল পাঁচটার দিকে তাকে টঙ্গিবাড়ী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স হাসপাতালে নিয়ে আসা হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

পরে ওই শিশুকে বাড়ি নিয়ে যাওয়া হলেও এলাকার কতিপয় ব্যক্তির পরামর্শে তাকে বেদেপল্লিতে নিয়ে যায় তার পরিবার। সেখানে ঝাড়ফুঁক চলছে। রাত ৮টায় এ নিউজ লেখা পর্যন্ত টঙ্গিবাড়ী উপজেলার বিয়াইন্না বেদেপল্লিতে ওই শিশুরা ঝাড়ফুঁক চলছে বলে নিহত শিশুর পরিবার সূত্রে নিশ্চত হওয়া গেছে।

জানা গেছে, বিকেল চারটার দিকে নিহত জুনায়েদ সেখ তার নিজ বাড়ির পাশে পুড়াপাড়া গ্রামের দেওয়ান বাড়ির পুকুরে ডুব দিয়ে মাছ ধরেছিল। এ সময় একটি বিষধর সাপ তার মাথায় কামড় দিলে সে মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়ে। পরে তাকে উদ্ধার করে টঙ্গিবাড়ী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স হাসপাতালে নিয়ে এলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

এ ব্যাপারে ওই এলাকার সিহাদ দেওয়ান জানান, হাসপাতালে নেওয়ার পর চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করলেও এলাকার কতিপয় ব্যক্তির পরামর্শে বেদেপল্লিতে নিয়ে ওই শিশুকে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে।

এ ব্যাপারে টঙ্গিবাড়ী উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা তাসলিমা ইসলাম ঢাকা পোস্টকে জানান, বিষয়টি সম্পর্কে খোঁজ নিয়ে বিস্তারিত জেনে ব্যবস্থা নেব।

সূত্রঃ ঢাকা পোস্ট

শেয়ার করুন

এই সম্পর্কিত আরও সংবাদ

টুইটারে আমরা

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০২০

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

সৌজন্যে : নোঙর মিডিয়া লিমিটেড