আবারও ভয়ংকর হচ্ছে করোনা ভাইরাস, একদিনে আক্রান্ত ৪ লাখের বেশি

75

আবারও ভয়ংকর হয়ে উঠছে মহামারি করোনা ভাইরাস। বিশ্বজুড়ে আবারও বাড়তে শুরু করেছে আক্রান্ত ও মৃত্যুর সংখ্যা। আগস্টের পর একদিনে আবারও করোনায় ৬ হাজার ৮শ’র বেশি মৃত্যু দেখল বিশ্ব। একই সঙ্গে রেকর্ড ৪ লাখ ৩৫ হাজার মানুষের দেহে শনাক্ত হয়েছে প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাস।

করোনাভাইরাসে আক্রান্তদের সংখ্যা ও প্রাণহানির পরিসংখ্যান রাখা ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডওমিটারের তথ্যানুযায়ী, বৃহস্পতিবার (২২ অক্টোবর) সকাল পর্যন্ত বিশ্বের বিভিন্ন দেশে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে ১১ লাখ ৩৬ হাজার ৩৩৫ জনের এবং আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৪ কোটি ১৪ লাখ ৮৪ হাজার ৬৩২ জন। এর মধ্যে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ৩ কোটি ৯ লাখ ১০ হাজার ৮৭৫ জন।

বিশ্বে এখন পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হয়ে সবচেয়ে বেশি মৃত্যু হয়েছে যুক্তরাষ্ট্রে, ২ লাখ ২৭ হাজার ৪০৯ জন। বিশ্বে সর্বোচ্চ আক্রান্তের সংখ্যাও এই দেশটিতে। বিশ্বের ক্ষমতাধর এ দেশটিতে এখন পর্যন্ত ৮৫ লাখ ৮৪ হাজার ৮১৯ জন আক্রান্ত হয়েছেন। 

করোনা আক্রান্তের সংখ্যায় দ্বিতীয় এবং মৃতের সংখ্যায় তৃতীয় অবস্থানে আছে ভারত। দেশটিতে এখন পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছেন ৭৭ লাখ ৫ হাজার ১৫৮ জন। এখন পর্যন্ত দেশটিতে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ১ লাখ ১৬ হাজার ৬৫৩ জন।

করোনা আক্রান্তের সংখ্যায় তৃতীয় এবং মৃতের সংখ্যায় দ্বিতীয় অবস্থানে আছে ব্রাজিল। দেশটিতে এখন পর্যন্ত এ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ৫৩ লাখ ৬৪৯ জন। এখন পর্যন্ত দেশটিতে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন এক লাখ ৫৫ হাজার ৪৫৯ জন।করোনায় মৃতের দিক থেকে চতুর্থ অবস্থানে মেক্সিকো। দেশটিতে এখন পর্যন্ত এ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ৮৭ হাজার ৪১৫ জন। আর এ পর্যন্ত দেশটিতে আক্রান্ত হয়েছে ৮ লাখ ৬৭ হাজার ৫৫৯ জন।

আক্রান্তের দিক থেকে চতুর্থ অবস্থানে আছে রাশিয়া। দেশটিতে এখন পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছে ১৪ লাখ ৪৭ হাজার ৩৩৫ জন। আর মৃতের সংখ্যা ২৪ হাজার ৯৫২ জন।সুস্থতার দিক থেকে প্রথম অবস্থানে উঠে এসেছে ভারত (৬৮ লাখ ৭১ হাজার ৮৯৫ জন), দ্বিতীয় অবস্থানে আছে যুক্তরাষ্ট্র (৫৬ লাখ ২ হাজার ১১৬ জন) এবং তৃতীয় অবস্থানে আছে ব্রাজিল (৪৭ লাখ ৫৬ হাজার ৪৮৯ জন)।

এ ছাড়া সেকেন্ড ওয়েভের মুখে ভাইরাসের বিস্তার লাফিয়ে বাড়ছে ফ্রান্স, স্পেন, ইতালি, যুক্তরাজ্য, জার্মানিসহ ইউরোপের বেশির ভাগ দেশে।গত বছরের ডিসেম্বরের শেষ দিকে চীনের হুবেই প্রদেশের উহান থেকে করোনাভাইরাস সংক্রমণ শুরু হয়। এখন পর্যন্ত বাংলাদেশসহ বিশ্বের ২১৫টি দেশে ও অঞ্চলে ছড়িয়ে পড়েছে কোভিড-১৯।